হাতিরঝিল এলাকা থেকে টিকটক হৃদয়বাবুর অন্যতম সহযোগী ও চিহ্নিত সন্ত্রাসী হিরো অনিকসহ গ্রেফতার ৫ জন, বিদেশী অস্ত্র, গুলি ও মাদক উদ্ধার

বর্তমান খবর,বিশেষ প্রতিনিধি : র‌্যাব-৩ এর অভিযানে রাজধানীর হাতিরঝিল এলাকা থেকে টিকটক হৃদয় বাবুর অন্যতম সহযোগী ও মগবাজারের চিহ্নিত সন্ত্রাসী অনিক হাসান @ হিরো অনিকসহ গ্রেফতার ৫জন বিদেশী অস্ত্র,গুলি ও মাদক উদ্ধার।

গোয়েন্দা তথ্যের ভিত্তিতে র‌্যাব-৩ এর একটি আভিযানিক দল অদ্য ০৫ জুলাই ২০২১ তারিখ বেলা ১২.৩০ সময় হাতিরঝিল এলাকায় অভিযান পরিচালনা করে চিহ্নিত সন্ত্রাসী ও মাদক কারবারী হিরো অনিক গ্রপের মূল হোতাসহ পাঁচ জনকে গ্রেফতার করা হয়।

গ্রেফতারকৃতরা হলোঃ (১) দলের মলূ হোতা অনিক হাসান @ হিরো অনিক (২৫), পিতা-মৃত কামরুল হাসান, মাতা-মোছাঃফিরোজা বেগম হীরা, থানা-হাতিরঝিল, ডিএমপি, ঢাকা এবং সহযোগি, (২) মোঃ শহিদুল ইসলাম @এ্যাম্পুল (৩৪),পিতা-মৃত আলতাফ হোসেন গাজী, মাতা-মমতাজ বেগম, সাং-বাদুরতলা, থানা-নলছিটি, জেলা-ঝালকাঠি, (৩) আবির আহমেদ রাকিব (২২), পিতা-মোঃ আজিজলু হক, মাতা-মোছাঃ খাদিজা বেগম, সাং-চর শিহারী, থানা-ঈশ্বরগঞ্জ, জেলা-ময়মনসিংহ,(৪) মোঃ সোহাগ হোসেন আরিফ (৩৬), পিতা-মোঃ বাবুল হোসেন, মাতা-মোছাঃ মমতাজ বেগম, সাং-সাগরপাড়া, থানা-বোয়ালিয়া, আরএমপি, রাজশাহী এবং (৫) হিরা (২২), পিতা-রঞ্জু খান, মাতা-লিপি আক্তার, বাসা-২৩১ তিতাস মিয়ার বাড়ী, থানা-হাতিরঝিল, ডিএমপি, ঢাকা।

গ্রেফতারকৃতদের নিকট হতে উদ্ধার করা হয় ০১টি বিদেশী পিস্তল, ০২ রাউন্ড গুলি ও ০১টি ম্যাগাজিন, ধারালো অস্ত্র ০৫টি, চেইন ০১টি, ৩০০ পিচ ইয়াবা ট্যাবলেট, ০৭টি মোবাইল ফোন ও নগদ ৩৪০০/- টাকা উদ্ধার করা হয়।

প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে জানা যায়, গ্রেফতারকৃত অনিক হাসান @ হিরো অনিক মগবাজার হাতিরঝিল ও তদসংলগ্ন এলাকার একজন চিহ্নিত সন্ত্রাসী এবং মাদক সিন্ডিকেটের অন্যতম হোতা। বর্তমানে তার নামে হত্যা, মাদক ও অস্ত্র, ডাকাতীসহ ০৯টি মামলা রয়েছে। তার গ্রুপের সদস্য সংখ্যা প্রায় ২০-২৫ জন। কিশোর অবস্থায় থেকেই সে অপরাধ চক্রের সাথে জড়িয়ে পড়ে। ধীরে ধীরে সে সংঘবদ্ধ দল গড়ে তোলে।

সে ২০১৬ সালের আলোচিত “আরিফ হত্যা” মামলার মাধ্যমে পরিচিতি পায়। তার এই সংঘবদ্ধ দল মগবাজার, মধুবাগ, মীরবাগ, নতনু রাস্তা পেয়ারাবাগ, চেয়ারম্যান গলি,আমবাগান ও হাতিরঝিল এলাকায় আধিপত্য বিস্তার, মাদক সিন্ডিকেট ও নৈরাজ্য সৃষ্টি করে আসছিল।

বিভিন্ন সময়ে সে ও তার দল হাতিরঝিলে আগত দর্শনার্থীদের ভয়ভীতি প্রদর্শন করে ছিনতাই ও চাঁদাবাজী করত। এছাড়া সে উক্ত এলাকার মাদক ব্যবসা নিয়ন্ত্রণ করত। হাতিরঝিল এলাকা দৃষ্টিনন্দন হওয়ায় টিকটিক গ্রুপের কার্যকলাপগুলোও সে নিয়ন্ত্রণ করত। সে টিকটক হৃদয়ের অন্যতম সহযোগী ছিল। সে টিকটক হৃদয়ের চাহিদায় সন্ত্রাসী কার্যকলাপ করত। এছাড়া সে টিকটক হৃদয়কে টিকটক গ্রুপের নেশা ও আড্ডার জন্য মাদক সরবরাহ করত। সে মাদক সিন্ডিকেট সম্পর্কে গুরুত্বপূর্ণ তথ্য দিয়েছে।

গ্রেফতারকৃত অপর সদস্যদের গঠনমলূক কোন পেশা নেই। অপরাধ থেকেই মূলত তাদের আয়ের উৎস। গ্রেফতারকৃতদের নামে মামলার বিবরণ ঃ (১) মোঃ শহিদুল ইসলাম @ এ্যাম্পুল, বর্তমানে তার নামে মাদক এবং চুরির ০৬টি মামলা রয়েছে, (২) আবির আহমেদ রাকিব (২২), বর্তমানে তার নামে ০২টি মামলা রয়েছে, (৩) মোঃ সোহাগ হোসেন আরিফ (৩৬), বর্তমানে তার নামে নারী ও শিশু অপহরণ, মাদক এবং ডাকাতির ০৩টি মামলা রয়েছে এবং (৪) হিরা (২২), বর্তমানে তার নামে হত্যার
উদ্দেশ্যে গুরুত্বর আঘাত এবং চুরি ০১টি মামলা রয়েছে। ধৃত আসামীদের বিরুদ্ধে আইনানুগ ব্যবস্থা প্রক্রিয়াধীন।

আরও পড়ুন
Loading...