শিশু ধর্ষণকারী গ্রেফতার, বিচারের দাবিতে মানববন্ধন

বর্তমান খবর,ঝিনাইদহ প্রতিনিধিঃ
ঝিনাইদহের কালীগঞ্জে ৫ বছরের একটি কণ্যা শিশু ধর্ষণের প্রতিবাদে দোষিদের গ্রেফতার ও শাস্তির দাবিতে মানববন্ধন কর্মসূচী পালিত হয়েছে। বুধবার সকালে শহরের পোস্ট অফিস মোড়ে এ কর্মসূচীর আয়োজন করে সম্মিলিত সাংস্কৃতিক জোট। এতে ব্যানার ফেস্টুন নিয়ে জোটের নেতৃবৃন্দ, সাংস্কৃতিক কর্মী, জেলা ছাত্রলীগের নেতাকর্মীসহ নানা শ্রেণী পেশার মানুষ অংশ নেয়।

সম্মিলিত সাংস্কৃতিক জোটের সভাপতি শান্ত জোয়ার্দারের সভাপতিত্বে মানববন্ধনে বক্তব্য রাখেন, ঝিনাইদহ জেলা মহিলা সংস্থার চেয়ারম্যান,জেলা নারী সমাজ কল্যান সমিতির সভাপতি দিপ্তী রহমান, জেলা স্বেচ্ছাসেবক লীগের সভাপতি আহাদুর রহমান খোকন, ঝিনাইদহ প্রেসক্লাবের প্রচার সম্পাদক,মানবাধিকার সংগঠন হিউম্যান রাইটস মনিটরিং অর্গানাইজেশন,ঝিনাইদহ জেলা শাখার সভাপতি,সাবেক ছাত্রনেতা সাংবাদিক শামীমুল ইসলাম শামীম,জেলা ছাত্রলীগের সভাপতি রানা হামিদ,জেলা গণশিল্পী সমিতির সভাপতি এম এ সালাম, উই এর পরিচালক শরিফা খাতুন,বিহঙ্গ’র সাধারণ সম্পাদক শাহীনুর আলম লিটন,সম্মিলিত সাংস্কৃতিক জোটের সাংগঠনিক সম্পাদক অমিয় মজুমদার অপু, জেলা নাট্য সমন্বয় পরিষদের সভাপতি রুবেল পারভেজ, সাধারণ সম্পাদক তারেক হোসেন পল্লবসহ জেলা স্বেচ্ছাসেবক লীগ,ছাত্রলীগ,বিভিন্ন সাংস্কৃতিক ও সামাজিক সংগঠনের নেতৃবৃন্দ। অনুষ্ঠানটি সঞ্চালনা করেন সম্মিলিত সাংস্কৃতিক জোটের সাধারণ সম্পাদক প্রফেসর বাবুল আক্তার লাল্টু।

এ সময় বক্তারা বলেন, গত শুক্রবার কালীগঞ্জের সুবিতপুর গ্রামে প্রতিবেশী সেলিম হোসেন ওই শিশুকে পাশবিক নির্যাতন করে। বিষয়টি জানান পর পরিবারের লোকজন স্থানীয় চেয়ারম্যান মহিদুল ইসলাম মন্টুকে জানালে তিনি বিষয়টি ধামাচাপা দেওয়ার চেষ্টা করে।

বক্তারা বলেন,অবিলম্বে ধর্ষক সেলিম ও ঐ ইউপি চেয়ারম্যানকে আইনের আওতায় নিয়ে আসতে হবে এবং দৃষ্টান্ত মূলক শাস্তি দিতে হবে। অন্যদিকে কালীগঞ্জ থানা পুলিশ বুধবার সকালে ধর্ষক সেলিমকে গ্রফতার করেছে। কিন্তু এখনও ধরা ছোয়ার বাইরে রয়েছে ইউপি চেয়ারম্যান।

এ ঘটনায় অভিযুক্ত সেলিম হোসেন ও ধামাচাপা দেওয়ার চেষ্টাকারী স্থানীয় ইউপি চেয়ারম্যান মহিদুল ইসলাম মন্টুর শাস্তির দাবি জানান বক্তারা।

আরও পড়ুন
Loading...