নারী অস্ত্র হাতে নিয়ে তালেবানের অনুপ্রবেশ মেনে নিতে রাজি নন

বর্তমান খবর ডেস্ক : তালেবান আগ্রাসনের বিরুদ্ধে এবার আফগান নারীরা হাতে তুলে নিয়েছে অস্ত্র। আফগানিস্তানের বিভিন্ন স্থানে নিরাপত্তা বাহিনীর সঙ্গে সংঘর্ষের জের ধরে তালেবান বেশ কিছু জেলা দখল করে নেয়ার পর তালেবানের বিরুদ্ধে গণ-প্রতিরোধ বাহিনী গঠন করা হচ্ছে। এসব বাহিনীতে উল্লেখযোগ্য সংখ্যক আফগান নারী অংশগ্রহণ করছেন।

আফগানিস্তানের উত্তর, পূর্ব ও পশ্চিমাঞ্চলে এসব গণ-প্রতিরোধ বাহিনী গঠন করা হচ্ছে। তবে তালেবান বুধবার এক বিবৃতি প্রকাশ করে এই মর্মে হুঁশিয়ারি উচ্চারণ করেছে যে, যারা এ ধরনের বাহিনী গঠন করার উদ্যোগ নিয়েছেন তাদেরকে ক্ষমা করা হবে না। তালেবানের বিবৃতির বক্তব্যের ধরন থেকে বোঝা যায় তারা ক্ষমতা হাতে পাওয়ার পর এসব উদ্যোক্তাকে শাস্তি দেয়ার কথা বুঝেয়েছেন। অবশ্য তালেবান এখন পর্যন্ত বেশ কিছু জেলা দখল করতে পারলেও এককভাবে কোনও প্রদেশ বা বড় কোনও শহর দখল করতে পারেনি।

আফগানিস্তানের জুযজান প্রদেশের বহু নারী নিরাপত্তা বাহিনীর সমর্থনে অস্ত্র হাতে তুলে নিয়েছেন বলে দেশটির গণমাধ্যমগুলো খবর দিয়েছে। জুযজানের প্রাদেশিক সরকার এক বিবৃতি প্রকাশ করে এ খবরের সত্যতা নিশ্চিত করে বলেছে, এসব নারী অস্ত্র হাতে নিয়ে এই বার্তা দিতে চান যে, তারা তাদের শহরগুলোতে কোনও অবস্থায় তালেবানের অনুপ্রবেশ মেনে নিতে রাজি নন।

রাজধানী কাবুলের উত্তরে অবস্থিত কুহ্দামান শহরের শত শত মানুষ এক স্থানে সমবেত হয়ে পুলিশের কাছ থেকে অস্ত্র গ্রহণ করে নিরাপত্তা বাহিনীর প্রতি নিজেদের সমর্থন ঘোষণা করেছেন।

আরও পড়ুন
Loading...